‘বিশ্রাম অনুশীলনের মতোই গুরুত্বপূর্ণ

0 166

ক্রিকেটীয় উত্তাপ আছেই, কিন্তু এবারের এশিয়া কাপে ‘গরম’ খুব বড় একটা ব্যাপার। খেলোয়াড়দের জন্য রীতিমতো ভোগান্তির। ৪৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রায় খেলা হলে সেটি তো খেলোয়াড়দের ভোগাবেই। মরুময় আরব আমিরাতে এশিয়া কাপটা তাই ক্রিকেটীয় সামর্থ্য প্রমাণের পাশাপাশি হয়ে উঠেছে গরমের সঙ্গে লড়ে টিকে থাকার যুদ্ধও।

অসহ্য গরমের সঙ্গে যোগ হয়েছে ঠাসা সূচি। খেলোয়াড়েরাও পড়ছেন চোটে। প্রতিটি ম্যাচেই দেখা যাচ্ছে পেশির টান নিয়ে অস্বস্তি প্রকাশ করেছেন ক্রিকেটাররা। পানিশূন্যতায় আক্রান্ত হওয়ার ব্যাপারও আছে। সে কারণেই কাল পাকিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচের আগে বিশ্রামকেই প্রাধান্য দিচ্ছেন বাংলাদেশের কোচ স্টিভ রোডস।
গতকাল পুরো দিন বিশ্রামে কাটিয়েছেন ক্রিকেটাররা। আজও অনুশীলন ছিল ঐচ্ছিক। রোডস মনে করেন অনেক সময় অনুশীলনের মতোই গুরুত্বপূর্ণ হয়ে ওঠে বিশ্রামের ব্যাপারটি, ‘কঠিন একটা সূচি। ভ্রমণ অনেক। দুবাই থেকে আবুধাবি বেশ দীর্ঘ যাত্রা। আমাদের অবস্থান দুবাইয়েরও একটা প্রান্তে হওয়ায় ভ্রমণে আরও আধ ঘণ্টা যোগ হয়। ব্যাপারটা অবশ্য সব দলের ক্ষেত্রেই হচ্ছে। গত দুই দিন খেলোয়াড়দের জন্য নতুন করে সূচি সাজানো হয়েছে। গতকাল পুরোপুরি বিশ্রাম ছিল। আজও রাখা হয়েছে ঐচ্ছিক অনুশীলন। যেন শারীরিক ও মানসিকভাবে খেলোয়াড়েরা ভালো থাকতে পারে। আমি খেলোয়াড়দের বলেছি এই গরমের মধ্যে বিশ্রাম নেওয়া অনুশীলন করার মতোই গুরুত্বপূর্ণ।’
আজকের অনুশীলনটা ঐচ্ছিক হওয়ার কারণ খেলোয়াড়দের মানসিকভাবে সহজ রাখা, ‘খেলোয়াড়েরা নিজেদের শরীর সম্পর্কে ভালোই জানা আছে। তাই অনুশীলনের বিষয়টি আমি তাদের ওপরেই ছিঁড়ে দিয়েছি। যদি তাঁরা মনে করে অনুশীলন করবে। যদি তাঁরা মনে করে বিশ্রাম নেওয়া প্রয়োজন, তাহলে বিশ্রাম নেবে। ক্যাম্পে আমরা অনেক অনুশীলন করেছি। এই গরমে অনুশীলনের চেয়ে বিশ্রাম নেওয়াটা গুরুত্বপূর্ণ।’
পাকিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচটি নিয়ে তাঁর বক্তব্যও খুব সহজ, ‘আমরা চ্যালেঞ্জের জন্য উন্মুখ হয়ে আছি। সত্য কথা বলতে দারুণ লড়াই হবে এবং যার জন্যই আমরা এসেছি। আমরা একটি ম্যাচে জিতেছি এবং এই ম্যাচটি আমাদের ফাইনালে পৌঁছে দিতে পারে।’
এখন কেবল দেখার অপেক্ষা বিশ্রাম নিয়ে পাকিস্তানের বিপক্ষে ক্রিকেটাররা কতটা চাঙা হয়ে নামতে পারেন।

Leave A Reply

Your email address will not be published.